সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কত-সিঙ্গাপুর বেতন তালিকা

সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কত
সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কত

হাজারো মানুষের স্বপ্ন দেশ সিঙ্গাপুর। তাই সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কত নিয়ে সবার মনে আছে নানান রকমের প্রশ্ন। প্রতিবছর বাংলাদেশ থেকে সিঙ্গাপুর শ্রমিক নিয়ে থাকে। সেখানে হাজারো বাঙালির শ্রমিক সিঙ্গাপুর গিয়ে কর্মসংস্থান পায়। তবে সবার কর্মসংস্থান কিন্তু এক নয়, আলাদা আলাদা সেক্টরে সবাই কাজ করে।

সবার কাজের ধরন যেমন একরকম নয় তেমনি সবার এক ধরনের বেতন পায় না। অনেকের মনেই তাই প্রশ্ন জাগে সেখানে গিয়ে কত টাকা বেতন পাব। সেখানে গিয়ে আমি কি ভালোভাবে থাকতে পারবো? এরকম হাজারো প্রশ্ন থেকে থাকে। থাকবে না কেন অনেক টাকা খরচ করে যখন স্বপ্নের দেশ সিঙ্গাপুরে যাবেন গিয়ে যদি দেখেন পরিশ্রমের তুলনায় অর্থ কম তখন মনটা খারাপ হবে।

তাই আজকে আমাদের এই কন্টেন্টের মাধ্যমে আমরা সিঙ্গাপুর কাজের বেতন সম্পর্কে আলোচনা করব। সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কেমন, কোন ধরনের কাজগুলোর বেতন বেশি এবং কোন ধরনের কাজগুলোর বেতন কম এ সম্পর্কে বিস্তারিত জানানোর চেষ্টা করব। এছাড়াও থাকবে সিঙ্গাপুরে যত ধরনের কাজ আছে সকল কাজের একটি বেতন লিস্ট।

আজকের এই একজন সিঙ্গাপুর প্রবাসীর জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। একটি কন্টাক্ট এর মাধ্যমে সিঙ্গাপুর বেতন সম্পর্কে সকল প্রশ্ন দূর হয়ে যাবে। আপনি যদি স্বপ্নের দেশ সিঙ্গাপুরে যেতে চান তাহলে অবশ্যই আমাদের এই কন্টেন্টটি মনোযোগ সহকারে পড়ুন।

সিঙ্গাপুর কাজের বেতন

সিঙ্গাপুরে কাজের বেতন ৪০ হাজার থেকে ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত।অন্যান্য দেশে তুলনায় সিঙ্গাপুরের বেতন মোটামুটি ভালো। এখানে কাজের শ্রেণীবিভাগ এর উপর নির্ভর করে বেতন দেওয়া হয়। আপনি যে ধরনের কাজ করবেন সে ধরনের কাজের উপর ভিত্তি করে আপনাকে বেতন দেয়া হবে।

সিঙ্গাপুরের সবাই এক ধরনের কাজ করে না। সবার কাজ করার ধরন আলাদা আলাদা। তাই সবার বেতন কাঠামো আলাদা। সিঙ্গাপুর কাজের বেতন সম্পর্কে বলা যায় সেখানে চল্লিশ হাজার থেকে শুরু করলে ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত বেতন দেওয়া হয়। তবে আপনি কোন ধরনের কাজ করছেন সেটাই বলে দেবে আপনার বেতন কেমন হবে। এছাড়া আপনি কতটা দক্ষ সেটার উপর নির্ভর করবে আপনার বেতন।

আরো পড়ুনঃ  দুবাই টেক্সি ভিসা এবং দুবাই ট্যাক্সি জবে বেতন কত

সিঙ্গাপুর কোন কাজে বেতন বেশি

সিঙ্গাপুরের সবচেয়ে ড্রাইভিং কাজের বেতন বেশি। যদিও সিঙ্গাপুরের কোন কাজের তুলনামূলক বেতন বেশি নয়। প্রতিটা কাজের বেতন সমঞ্জস্যপূর্ণ। আপনার সেক্টরের কাজে আপনি কতটা দক্ষ সেটার উপর নির্ভর করে আপনার বেতন কাঠামো।

তবে তুলনামূলকভাবে নিচের উল্লেখিত কাজগুলোর বেতন একটু বেশি। যদিও আপনাকে ভালো অভিজ্ঞতা অর্জন করতে হবে সেই কাজের উপর।

  • ড্রাইভিং,
  • কন্সট্রাকশন,
  • হোটেল,
  • রেস্টুরেন্ট,
  • ইলেকট্রনিক

সিঙ্গাপুরে কাজের বেতন বেশি পেতে হলে অবশ্যই আপনাকে দেশ থেকে যেকোনো একটি ট্রেনিং সেন্টার থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে যেতে হবে। প্রশিক্ষণ ছাড়া সেখানে গিয়ে আপনি ভালো বেতন পাবেন না। প্রশিক্ষণ নিয়ে সার্টিফিকেট থাকলে তবে আপনি সেখানে একটু ভাল মানের কাজ পাবেন। আর কিছু করব তারিখ

আরো পড়ুনঃ  বাংলাদেশ থেকে গ্রিস কিভাবে যাওয়া যায়
সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কত
সিঙ্গাপুর কাজের বেতন কত

সিঙ্গাপুরে শ্রমিকের বেতন

সিঙ্গাপুরের শ্রমিকের বেতন ৩০ হাজার থেকে শুরু করে ৭০ হাজার টাকা পর্যন্ত হয়। নতুনদের জন্য ৩০ হাজার টাকা হলেও আস্তে আস্তে এ টাকা পরিমাণ ৭০ হাজার টাকা পর্যন্ত হয়। তবে দেশ থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে গেলে প্রথম অবস্থায় ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত বেতন পাওয়া যায়।

সিঙ্গাপুরের শ্রমিকদের জন্য অনেক ধরনের কাজ রয়েছে। ক্লিনার থেকে শুরু করে ড্রাইভিং পর্যন্ত সকল ধরনের কাজ রয়েছে সিঙ্গাপুরে এখানকার বেতন কাঠামোটাও ভিন্ন ভিন্ন । আপনি যেরকম কাজ করবেন ঠিক সেরকম বেতন পাবেন । যারা নিম্নমানের কাজ করে তারা একটু নিম্নমুখী বেতন পায় , কিন্তু যারা একটু কাজ করে তাদের ভালো ধরনের বেতন পায়।

আরো পড়ুনঃ  পোল্যান্ড কাজের ভিসা ২০২৩ আবেদন সহ

অনেকে দেশ থেকে প্রশিক্ষণ না নিয়ে সিঙ্গাপুরে গিয়ে কাজ খোঁজে। যারা কাজ পায় কিন্তু একেবারে কম বেতনে কাজ পায়। তাদের জন্য অনেক সমস্যা দেখা দেয়। তাই সিঙ্গাপুরে গেলে অবশ্যই দেশ থেকে প্রশিক্ষণ করে যেতে হবে। দেশ থেকে প্রশিক্ষণ না নিয়ে সিঙ্গাপুর যাওয়া যাবে না। তাহলে ভেতরে একেবারেই কম হবে। বেতন বেশি পেতে হলে অবশ্যই সার্টিফিকেট নিয়ে যেতে হবে।

সিঙ্গাপুর কাজের সর্বনিম্ন বেতন

সিঙ্গাপুরের সর্বনিম্ন বেতন ৩০ হাজার টাকা। ৩০ হাজার টাকা থেকে শুরু করে ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত সিঙ্গাপুরে বেতন হয়। সিঙ্গাপুরে কাজ করতে গিয়ে যারা অদক্ষ হয় তাদের সর্বনিম্ন বেতন দেওয়া হয়। অনেকেই কাজ করতে গিয়ে কাজ করতে পারে না কাজ বোঝেনা তাদেরকে এ ধরনের বেতন দেওয়া হয়।

সিঙ্গাপুরের নানান ধরনের বেতন রয়েছে । তবে এসব বেতনের মধ্যে সবথেকে নিম্ন বেতন হলো 30 হাজার টাকা। অনেকে কাজ করতে গিয়ে কাজ করতে ব্যর্থ হয়, সঠিকভাবে কাজ করতে পারে না। তাদের জন্য এরকম বেতন নির্ধারিত থাকে। অনেকে আবার দেশ থেকে প্রশিক্ষণ না নিয়ে সিঙ্গাপুর বিভিন্ন পেশায় গিয়ে থাকে। সেখানে গিয়ে তারা একেবারে নিম্নতম বেতন পায়। ন্যূনতম কাজগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো ক্লিনার। ক্লিনার প্রেসার সবথেকে কম বেতন দেওয়া হয়। তবে এ ধরনের পেশায় অভিজ্ঞতা অর্জন করলে বেতন কিছুটা বাড়ার সম্ভাবনা থাকে। এছাড়াও নিজস্ব ব্যবহার ও আদব-কায়দার উপর নির্ভর করে ক্লিনার বেতন। ক্লিনার হয়ে অনেকেই ৫০ থেকে ৬০ হাজার টাকা পর্যন্ত ইনকাম করে।

আরো পড়ুনঃ  কুয়েত ড্রাইভিং জব সার্কুলার-কুয়েত ড্রাইভিং ভিসা বেতন কত

সিঙ্গাপুরে সর্বোচ্চ বেতন কত

সিঙ্গাপুরের সর্বোচ্চ বেতন ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকার মতো। সিঙ্গাপুরে বেশ কিছু  কাজ রয়েছে যেগুলোর বেতন ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকা হয়ে থাকে। তবে এ ধরনের বেতন পেতে হলে অবশ্যই পূর্ণ দক্ষতা থাকতে হবে। পূর্ণ দক্ষতা ছাড়া এ ধরনের বেতন পাওয়া যায় না।

সিঙ্গাপুরে যেহেতু কমবেশি অনেক ধরনের শ্রম ভিসা কাজ করতে যায় বাঙালিরা, সেখানে ভিসার বেতন নানা রকম হবে এটাই স্বাভাবিক। সিঙ্গাপুরের কিছু কাজ রয়েছে যেগুলোর বেতন একেবারে নিম্নতম তবে কিছু ভালো কাজ আছে যেগুলোর বেতন অনেক বেশি। এই কাজগুলো করতে হলে বেশ কিছু দক্ষতা অর্জন করতে হয়। দক্ষতা অভিজ্ঞতা ছাড়া এ ধরনের কাজে ঢোকা সম্ভব না।

সিঙ্গাপুরে কিছু আইটি সেক্টরে কাজ করলে অনেক বেশি বেতন পাওয়া যায়। তবে এটি সেক্টরে কাজ করতে হলে দেশ থেকে অনেক ধরনের প্রশিক্ষণ নিতে হবে। এবং প্রশিক্ষণের পরীক্ষায় বেশ ভালো রেজাল্ট হতে হবে। এছাড়া বিভিন্ন আইটি সেক্টরের নূন্যতম চাকরি করার অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। বাংলাদেশ থেকে অনেক মানুষ সিঙ্গাপুরে কাজ করে বহু টাকা ইনকাম করছে।

আরো পড়ুনঃ  সরকারি ভাবে জাপানি ভাষা শিক্ষা কেন্দ্র কোথায়

সিঙ্গাপুরের ড্রাইভিং বিষয়ে অনেক বেশি টাকা বেতন পাওয়া যায়। তবে এক্ষেত্রে অনেক ভালো ধরনের ড্রাইভিং করতে জানতে হয়। সিঙ্গাপুরের বেশ কিছু অফিসে অনেক দক্ষ ড্রাইভিং নিয়ে থাকে। সে সকল জায়গায় ড্রাইভিং করতে পারলে অনেক বেশি টাকা বেতন পাওয়া যাবে। তবে তাদের সাথে কথা বলার জন্য বেশ ভালোভাবে ইংরেজি জানার প্রয়োজন আছে। ইংরেজি জানা না থাকলে সেখানে স্কিল ডেভেলপ কোর্স করা যায় না। এছাড়াও সেখানে বিভিন্ন কর্মসংস্থান সংস্থার সাথে মিট করা ও সম্ভব হয় না।

আরো পড়ুনঃ  দুবাই সিকিউরিটি গার্ড কোম্পানি ২০২৩

যে সকল কাজে অল্প বেতন দেওয়া থাকে সে সকল কাজে শ্রমিকরা ধীরে ধীরে বেতন বাড়িয়ে নিতে পারে। শ্রমিকরা ধীরে ধীরে তাদের স্কিল ডেভলপ করার মাধ্যমে বেতন বাড়িয়ে থাকে। নূন্যতম ইংরেজি বোঝারও জানার দক্ষতা থাকলে সেখানে গিয়ে অনেক ধরনের স্কিল ডেভেলপ করে ভালো বেতনে চাকরি করার সুযোগ থাকে। তার জন্য বাংলাদেশ থেকে সিঙ্গাপুর ভিসা ট্রেনিং সেন্টার প্রশিক্ষণ নিয়ে যেতে হবে। এছাড়াও স্বাভাবিকভাবে ইংরেজি বোঝার জন্য কিছু স্টাডি করা প্রয়োজন। সিঙ্গাপুরে কাজের অবসরে বিভিন্ন স্কিল ডেভেলপ করে জায়গায় কাজ করার সুযোগ থাকে।

সিঙ্গাপুর বেতন তালিকা

কাজবেতন
চিকিৎসক2335624.30/= টাকা
প্রকল্প ব্যবস্থাপক2283308.09/= টাকা
গবেষক বিজ্ঞানী2264276.26/= টাকা
ওয়েব ডেভেলপার1553270.81/= টাকা
বিজনেস এনালিস্ট1557623.38/= টাকা
ডেটা বিজ্ঞানী1640322.25/= টাকা
শিল্প ডিজাইনার1780031.28/= টাকা
প্রভাষক1603112.03/= টাকা
মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার1553868.22/= টাকা
ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার1073549.09/= টাকা
ফ্যাশন ডিজাইনার766052.68/= টাকা
নার্স632317.77/= টাকা
ওয়েটার 400607.32/= টাকা
কোষাধ্যক্ষ372528.96/= টাকা
রাসায়নিক প্রকৌশলী1538506.20/= টাকা
তথ্য বিশ্লেষক1443773.75/= টাকা
অফিস ম্যানেজার 1442664.27/= টাকা
গ্রাফিক ডিজাইনার1231095.13/= টাকা
হিসাবরক্ষক1579471.59/= টাকা

সিঙ্গাপুরের বেতন কাঠামো মূলত এরকমই। তবে অভিজ্ঞতা ও কর্মদক্ষতার উপর নির্ভর করে বেতন কিছুটা কম বেশি হতে পারে। অনেকের বেসিক বেতন কম হয় কিন্তু আস্তে আস্তে কাজের অভিজ্ঞতার উপর নির্ভর করে বেতন বৃদ্ধি পায়। তাই সবসময় চেষ্টা করতে হবে কোন কাজের উপর সুনির্দিষ্ট দক্ষতা অর্জন করার। এক্ষেত্রে দেশ থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে আসাটা সবথেকে বেশি ভালো।

1 Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *