মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন (এক ক্লিকে)

মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন
মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন

মাতৃকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন কিভাবে করবেন এবং আবেদন ফরম কিভাবে ডাউনলোড করবেন এ সংক্রান্ত তথ্যগুলো নিয়ে আজকে আমরা বিস্তারিত ভাবে তুলে ধরেছি। এখান থেকে আপনারা এক ক্লিকের মাধ্যমেই আবেদন ফরমটি ডাউনলোড করতে পারবেন এবং এখান থেকেও আপনারা আবেদন ফরম পূরণ করে অনলাইনের মাধ্যমে মাতৃকালীন ভাতা আবেদন করতে পারবেন।

২০২৩ সালে মাতৃকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন প্রক্রিয়া চালু আছে আবেদন করার জন্য আমাদের দেওয়া নিয়ম অনুযায়ী আপনারা এখানে আবেদন করতে পারবেন আবেদন করতে হলে নিচে আমরা লিংক দিয়েছি এবং স্টেপ বাই স্টেপ বুঝিয়ে দিয়েছি তাই সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি আপনারা মনোযোগ সহকারে পড়ে মাতৃকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন ফরমটি সুন্দর মত পূরণ করুন।

আবেদন পত্র যদি কোন ধরনের ভুল ত্রুটি থেকে থাকে তাহলে মাত্রিক আলিন ভাতা থেকে আপনি বঞ্চিত হতে পারেন। তাই অবশ্যই আপনার প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো সংগ্রহ করে এবং কাগজগুলো সঙ্গে নিয়ে মাতৃকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন সম্পন্ন করবেন। তাহলে চলুন কিভাবে করবেন পর্যায়ক্রমে বিষয়গুলো দেখে নিন।

গর্ভবতী ভাতা অনলাইন আবেদন ২০২৩

গর্ভবতী ভাতা অনলাইনে আবেদন করার জন্য এই লিংকে ক্লিক করুন http://103.48.16.6:8080/LM-MIS/applicant/onlineRegistration এরপরে পর্যায়ক্রমে ব্যক্তিগত তথ্য পূরণ করুন। এখানে জন্ম তারিখ ,পরিচয় পত্র, বাংলা এবং ইংলিশে নিজের নাম পিতা মাতার নাম জন্মস্থান ধর্ম সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য পূরণ করে মোবাইল নাম্বার দিয়ে আবেদন সম্পন্ন করে ফেলুন।

এখানে বৈবাহিক অবস্থা রক্তের গ্রুপ, শিক্ষাগত যোগ্যতা, মোবাইল নাম্বার, বর্তমান ঠিকানা, বিভাগ পর্যায়ক্রমে সম্পূর্ণভাবে পূরণ করতে হবে। এরপরে প্রয়োজনীয় ছবি এবং স্বাক্ষর টিপসহ ফাইল সংযোজন করে সেভ করুন। তাহলে আপনি গর্ভবতী ভাতা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন। আবেদন করার জন্য আমাদের দেওয়া উপরের লিংকে ক্লিক করলেই পর্যায়ক্রমে সমস্ত তথ্য গুলো পূরণ করার অপশন পেয়ে যাবেন।

বাবা মায়ের নাম এনআইডি কার্ডের নাম অনুযায়ী প্রদান করতে হবে। আবেদন ফরমে কোন ধরনের ভুল ত্রুটি থাকলে আবেদন গ্রহণযোগ্য হবে না।

আরো পড়ুনঃ  ডেঙ্গু মশা কামড়ানোর কত সময় পর জ্বর হয়

মাতৃত্বকালীন ভাতা ২০২৩-২০২৪

মাত্র কালীন ভাতা আবেদন করার জন্য আপনারা দুই ভাবেই আবেদন করতে পারবেন। এক হচ্ছে অনলাইনের মাধ্যমে আরেকটি হচ্ছে অনলাইন থেকে মাতৃকালীন ভাতা আবেদন ফরম ডাউনলোড করে নিচে হাতে সেটা পূরণ করে প্রয়োজনীয় ছবি এবং স্বাক্ষর করে আবেদন করতে পারবেন।

এক্ষেত্রে আমরা নিচে একটি লিংক দিয়ে দিচ্ছি সেখান থেকে আপনারা মাতৃকালীন ভাতা আবেদন ফরমটি ডাউনলোড করে নিজের হাতে সেটি পূরণ করতে পারবেন। এক্ষেত্রে অবশ্যই আপনার নাম ঠিকানা এবং আপনার এনআইডি কার্ডের নাম অনুযায়ী পূরণ করতে হবে। সেই সাথে আপনার বর্তমান ঠিকানা এবং আপনার রক্তের গ্রুপ কি এবং শিক্ষাগত যোগ্যতার বিষয়টি উল্লেখ করা লাগে।

ফর্সা হওয়ার জন্য ডাক্তারি ক্রিম কোনগুলো ভালো

মাতৃকালীন ভাতা আবেদন ফরম ডাউনলোড করার জন্য নিচের দেওয়া আমাদের ডাউনলোড এ ক্লিক করে খুব সহজেই ডাউনলোড করে নিতে পারবেন এজন্য আমাদের দেওয়া নিচের এই বাটনটিতে ক্লিক করুন এবং মাতৃকালীন ভাতা আবেদন ফরম পিডিএফ ডাউনলোড করে ফেলুন।

মাতৃত্বকালীন ভাতা আবেদন ফরমটি ডাউনলোড করার পরে কাল কালির কলম দ্বারা সুন্দর মত পূরণ করতে হবে এবং প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো সঠিকভাবে সংযোজন করার পরে আপনারা নিকটস্থ অফিসে গিয়ে জমা প্রদান করুন

গর্ভবতী আবেদন ফরম পূরণ করার ক্ষেত্রে অবশ্যই ভোটার আইডি কার্ডের নাম অনুযায়ী এবং স্বাক্ষর অনুযায়ী সেখানে স্বাক্ষর এবং ঠিকানা প্রদান করতে হবে।

আরো পড়ুনঃ  সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি ২০২৩ ( আজকের ইফতার )

গর্ভবতী ভাতার আবেদন করার নিয়ম

গর্ভবতী ভাতা আবেদন করার এই https://mowca.gov.bd/ প্রবেশ করুন। আবেদন অপশন এ ক্লিক করুন। আবেদন অপশনে ক্লিক করার পরে নিচে নাম, ঠিকানা, বর্তমান এড্রেস, বাবা মায়ের নাম, ( এনআইডি কার্ড অনুযায়ী )সচল মোবাইল নাম্বার, তথ্যগুলো সঠিকভাবে পূরণ করুন।

পর্যায়ক্রমে আপনার ছবি এবং স্বাক্ষর এর ছবি তুলে সেখানে আপলোড দেয়ার পরে সেভ বাটনে ক্লিক করেই আবেদন সম্পন্ন করতে পারবেন। প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো যাচাই-বাছাই করে সম্পূর্ণ সঠিকভাবে পূরণ করার পরেই সাবমিট বাটনে ক্লিক করুন। কোন ধরনের ভুল ত্রুটি থাকলে আবেদন ফরমটি গ্রহণযোগ্য হবে না।

গর্ভবতী ভাতা আবেদনপ্রথম পাতা
গর্ভবতী ভাতা আবেদনের নিয়মআবেদন করুন
আবেদনের সময়যেকোনো সময়
আবেদনের শেষ তারিখনির্দিষ্ট তারিখ নেই
গর্ভবতী ভাতা টাকার পরিমাণমাসি ৮০০ টাকা
গর্ভবতী ভাতা সময়ছয় ৪৮০০ টাকা
আরো পড়ুনঃ  পুরুষের জন্মনিয়ন্ত্রণ পদ্ধতি কয়টি

অনলাইনে গর্ভবতী কার্ড করার নিয়ম

অনলাইনে গর্ভবতী কার্ড করার নিয়ম হলো https://mowca.gov.bd/ ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে আপনাকে আবেদন অপশন আবেদন করতে হবে এক্ষেত্রে আমাদের দেওয়া নিচে টেবিলের ছক অনুযায়ী আবেদন সম্পন্ন করুন।

গর্ভবতী কার্ডপ্রথম পাতা
গর্ভবতী কার্ডের আবেদনআবেদন করুন
যোগ্যতানির্দিষ্ট নেই
বর্তমান ঠিকানাভোটার আইডি কার্ড অনুযায়ী
পেমেন্ট সিস্টেমমোবাইল ব্যাংকিং/ব্যাংকিং

আবেদন করার সময় মোবাইল ব্যাংকিং এর বিষয়ে দিতে পারবেন অথবা ব্যাংক একাউন্ট থাকলে সেই একাউন্টের তথ্য উল্লেখ করতে পারবেন।

মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন
মাতৃত্বকালীন ভাতা আবেদন

মাতৃত্বকালীন ভাতা কত টাকা

ভাতৃত্বকালীন ভাতা পাওয়ার জন্য যোগ্য নির্বাচিত হওয়ার পরে মাসে ৮০০ টাকা করে ৬ মাসে ৪৮০০ টাকা করে পাওয়া যায়। এভাবে দুই বছর পর পর 24 মাসের মধ্যে চারবার মোট ১৯ হাজার ২০০ টাকা পাওয়া যাবে। যদি তিন সন্তান হয়ে থাকে তাহলে তিন বছরে অর্থাৎ ৩৬ মাসের জন্য মোট ২৮ হাজার ৮০০ টাকা প্রদান করা হয়।

তবে গর্ভবতী ভাতা পাওয়ার জন্য অবশ্যই যোগ্য বিবেচিত হলে তবে সে প্রত্যেক মাসে ৮০০ টাকা করে পাবে। এর জন্য অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে আবেদনে প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো সংযোজন করে উপস্থাপন করতে হবে। পর্যায়ক্রমে আমরা এ বিষয়গুলো নিয়ে উপরে তুলে ধরেছি।

আরো পড়ুনঃ  ৮০০০ টাকার মধ্যে ভালো মোবাইল ফোন ২০২২

মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন 2023

মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইনে আবেদন করার জন্য আমাদের দেওয়া এই লিঙ্কে প্রবেশ করুন http://103.48.16.6:8080/LM-MIS/applicant/onlineRegistration প্রবেশ করার পরে নাম ঠিকানা এবং মোবাইল এড্রেস সহ বিস্তারিত ইনপুট দেওয়ার অপশন পাবেন। সেখানে প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো সংযোজন করে। আপনার নাম এবং ছবি সেভ করে দেওয়ার পরে সাবমিট বাটনে ক্লিক করুন।

এভাবে আপনারা মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে যদি আপনারা অফলাইনের মাধ্যমে মাতৃত্বকালীন ভাতা আবেদন করতে চান তাহলে নিচের দেওয়া আমাদের লিংক থেকে খুব সহজেই আবেদন ফরমটি পিডিএফ আকারে ডাউনলোড করে কলম দিয়ে ভালোমতো পূরণ করে আবেদন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে নিচে আমরা বিষয়টি আলোকপাত করেছি।

মাতৃত্বকালীন ভাতার আবেদন ফরম pdf

ভাতৃত্বকালীন ভাতা আবেদন ফরম pdf ডাউনলোড করার জন্য আমাদের দেওয়া নিচের ডাউনলোড বাটন থেকে খুব সহজেই ডাউনলোড করে নিতে পারবেন। ডাউনলোড করার পরে কাল কলমের কালি দ্বারা ফরমটি পূরণ করে জমা দিতে হবে। এক্ষেত্রে ফর্মে মোবাইল নাম্বার এবং নিবন্ধন আইডি কার্ডের নাম অনুযায়ী প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো সংযোজন করে করতে হবে।

ফর্মটি ক্লিক করে ডাউনলোড করে নিজেই পূরণ করতে পারবেন এক্ষেত্রে অবশ্যই প্রয়োজনীয় তথ্যগুলোর সঙ্গে নিয়ে তারপরে আবেদন ফরমটি পূরণ করবেন এক্ষেত্রে ভুল না হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকবে ভোটার আইডি কার্ড এবং নিবন্ধন আইডি কার্ড অবশ্যই সঙ্গে রেখেই পূরণ করার চেষ্টা করুন।

আরো পড়ুনঃ  ঢাকায় জানাজার দাবিতে সাইদী সমর্থকদের বিক্ষোভ

মাতৃকালীন ভাতা আবেদনের যোগ্যতা

  • প্রথম গর্ভধারণ অথবা দ্বিতীয় গর্ভধারণ সময় কালে
  • বয়স কমপক্ষে ২০ বছর এবং তার বেশি হতে হবে
  • মাসিকাই দুই হাজার টাকার নিচে থাকতে হবে
  • দরিদ্র এবং প্রতিবন্ধী গর্ভবতী ভাতার জন্য অগ্রগত অধিকার পাবে
  • শুধু বসতবাড়ি আছে অথবা বসতবাড়ি নাই এমন ব্যক্তিরাও আবেদন করতে পারবে
  • একজন গর্ভবতী মহিলা জীবনে একবার এই ভাতা পাবে
  • কোন কারণবশ্য যদি বাচ্চা গর্ভপাত হলে পরবর্তীতে সে আবারও আবেদন করার সুযোগ পাবে।

এছাড়া অনলাইনে আবেদন করার ক্ষেত্রে বিশেষ কিছু নিয়ম আছে সেগুলো অবশ্যই ফলো করে আমাদের দেওয়া ইনস্ট্রাকশন অনুযায়ী আবেদন ফরমটি পূরণ করবেন। সেখানে শিক্ষাগত যোগ্যতা এবং প্রয়োজনে আরো কিছু তথ্য সংযোজনের বিষয়টি উল্লেখ করা আছে।

মাতৃত্বকালীন ভাতা আবেদনের প্রশ্ন এবং উত্তর

মাতৃত্বকালীন ভাতা কত টাকা?

ভাতৃত্বকালীন ভাতা যোগ্য বিবেচিত হওয়ার পরে মাসিক ৮০০ টাকা করে ৬ মাস পরপর 4800 টাকা করে পাওয়া যায়। ২৪ মাসের ক্ষেত্রে ৪ বার করে মোট ১৯ হাজার ২০০ টাকা পাওয়া যাবে। ৩৬ মাসের মোট ২৮ হাজার ৮০০ টাকা পাবেন।

মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইন আবেদন?

মাতৃত্বকালীন ভাতা অনলাইনে আবেদন করার জন্য https://mowca.gov.bd/ প্রবেশ করুন। এখান থেকে প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো পূরণ করে আপনার ছবি এবং মোবাইল নাম্বার দিয়ে তথ্য সাবমিট করে আবেদন সম্পন্ন করুন।

মাতৃত্বকালীন ভাতা নীতিমালা?

একজন ব্যক্তি দুই বছর সময় কালের জন্য মাতৃত্বকালীন ভাতা পেয়ে থাকে। তিনি দুই সন্তানের ক্ষেত্রে মোট ৩৬ মাস পর্যন্ত তিন বছর এককালীন ভাতা পাবেন। এজন্য কিছু নীতিমালা রয়েছে ত বিস্তারিত তুলে ধরা হয়েছে।

Comments

No comments yet. Why don’t you start the discussion?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *